হত্যা, গুম, নির্যাতন ও হামলা চালিয়ে আন্দোলন দমন করা যাবে না, মির্জা ফখরুল

হত্যা, গুম, নির্যাতন ও হামলা চালিয়ে আন্দোলন দমন করা যাবে না। বি এন পির ৪৪ তম প্রতিষ্ঠাতা বার্ষিকি উপলক্ষ্যে বিকেলে রাজধানির নয়া পল্টনে র‍্যালির আগে বক্তব্য রাখেন মির্জা ফখরুল। তিনি সরকার পতন আন্দোলনে সবাইকে ঐক্যবধ্য হয়ে রাজপথে নামার আহবান জানান।

হাতি, ঘুড়া ঢুলের বাদ্য সঙ্গে স্লোগান ও বর্ণাঢ্য র‍্যালিতে নেচে গেয়ে ৪৪ তম প্রতিষ্ঠাতা বার্ষিকি উৎযাপন করল বি এন পি। বৃহস্পতিবার বিকেলে রাজধানীর নয়া পল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে থেকে র‍্যালি বের করে দলটি। এটি প্রেসক্লাবে যেয়ে শেষ হয়। র‍্যালির শুরুতে দেওয়া বক্তব্যে বি এন পির মহা সচিব নাড়ায়ণগঞ্জে দলিয় কর্মী নিহত হওয়ার ঘটনায় সরকারের কড়া সমালোচনা করেন।

শুক্রবার বাদ জুমা গায়েবানা জানাযা ও শনিবার বিক্ষোভ কর্ম সূচির ঘোষনা দেন তিনি। মির্জা ফখরুল বলেন, সরকার গুলি করে গণতান্ত্রিক আন্দোলনকে থামানোর চেষ্টা করছে। এর আগে সকালে চন্দ্রিমা উধ্যানে বি এন পির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের সমাধিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান দলের শীর্ষ নেতারা।

এসময় মহা সচিব বলেন, গণ আন্দোলন নস্যাত করতে আওয়ামিলীগ ও পুলিশ বি এন পির কর্মসূচিতে হামলা চালাচ্ছে। বি এন পি ক্ষমতায় গেলে জিয়াউর রহমান হত্যার পেছনের কুশিলকদের খুজে বের করতে কমিশন গঠন করা হবে বলে মন্তব্য করেন মির্জা ফখরুল।

Leave a Reply

Your email address will not be published.